Love, respect may bring peace

probz blog

যদিও আমি শিওর না আমার বিচার-বুদ্ধি বা আস্পর্ধা হয়েছে কিনা এরকম একটি বিষয়ে কিছু বলার, তথাপি বেয়াদপিটা করলাম।

দেখছি আমাদের দেশে কাগুজে আইন-কানুন ও সংবিধান না মেনে চলাটা একটা রেওয়াজ। ১৯৭১ থেকে ২০১২: আইনের শাসন, সামাজিক ন্যায়বিচার ও মতামত প্রদানের অধিকার কি সর্বক্ষেত্রে প্রতিষ্টিত হয়েছে?

নাহ। তবে, হচ্ছে, প্রক্রিয়া চলছে। ধীরে, ধীরে। হবে কোন একদিন। ধীরে, ধীরে।

সার্বজনীন “ষড়রিপু” ও কিছু বিশেষ প্রকারের “একান্তই দেশীয় অনুঘটকে”র কারনে রাষ্ট্রীয় প্রতিষ্ঠানের কর্মকর্তা-কর্মচারি থেকে শুরু করে রাজনৈতিক দলের নেতা-কর্মী, ছোট-বড় ব্যবসায়ি, সেবাখাতে (শিক্ষা-স্বাস্থ্য ও অন্যান্য) পেশাজীবী, কর্পোরেট চাকুরিজীবী, সিনেমা-টিভি-রেডিও-পত্রিকা-বিজ্ঞাপনে জড়িতরা, খন্ডকালীন চাকুরিজীবী, নিম্ন-আয়ের মানুষ, বেকার ও শিক্ষার্থীদের অনেকেই সবসময়, কেউ কেউ আবার মাঝে মাঝে, নানানভাবে নানা উদ্দেশ্যসাধনের কারনে দায়িত্ব ও আইন-কানুন পালন করছে না। এদের মধ্যে একটা বড় অংশ আবার নিছক মুদ্রাদোষের কারনেও এ কাজ করছে।

ফলে বর্তমান সময়ের রাষ্ট্র-ব্যবস্থায় ও সমাজে অস্থিরতা, অব্যবস্থাপনা, অনৈতিক ও অমানবিক কর্মকান্ড বেড়েই চলেছে এবং তা জনগন এবং খোদ রাষ্ট্রীয় উচ্চপদস্থ কর্মকর্তাদেরও শান্তি দিচ্ছেনা। ক্রোধে উন্মত্ত ও…

View original post 390 more words

Leave a Reply

Fill in your details below or click an icon to log in:

WordPress.com Logo

You are commenting using your WordPress.com account. Log Out / Change )

Twitter picture

You are commenting using your Twitter account. Log Out / Change )

Facebook photo

You are commenting using your Facebook account. Log Out / Change )

Google+ photo

You are commenting using your Google+ account. Log Out / Change )

Connecting to %s