Bangladesh must behave humanely in crisis

probz blog

মায়ানমারের শরনার্থী বিষয়ে সরকারের কঠোর মনোভাবে আমি হতাশ।

এমনিতেই যারা আছে তাদের নিয়ে সব সরকারই বিরূপ মনোভাব পোষন করে। কক্সবাজারের প্রায় আড়াই লক্ষ (সরকারি হিসেবে পাঁচ লক্ষ) রোহিঙ্গাদের ফেরত পাঠানো কর্যক্রম চলছে এখন। এদিকে আবার এদের মধ্যে একটা বড় অংশের অপরাধ সংঘটন নিয়ন্ত্রন করতেও সরকার ব্যর্থ।

কিছুদিন আগে মাত্র নির্বাচনে জিতে অং সাং সুচি রাজনীতিতে সক্রিয় হলেন বহুদিন পরে। এই অবস্থায় এরকম দাঙ্গা মায়ানমার সরকার ও জনগন শীঘ্রই দমাতে পারবে বলে আমার মনে হয় না। যে কারনে দেখা যাছে প্রতিদিন শতশত মানুষ সীমান্ত পারি দিচ্ছে নানাভাবে, এদের মধ্যে প্নেকেই আহত অবস্থায় আসছেন।

এ দেশের প্রায় ২ কোটি মানুষ মুক্তিযুদ্ধের সময় ভারতের বিভিন্ন রাজ্যে আশ্রয় নিয়েছিল কয়েকমাসের জন্য। কেউ কেউ আবার ফিরেও আসেনি। আমরা তো জানি যুদ্ধ বা দাঙ্গায় মানুষ কত অসহায় হয়ে পড়ে।

আমি মনে করি, এই মুহুর্তে পরিস্থিতি বিবেচনায় আগত শরনার্থীদের সাহায্য করা সরকারের নৈতিক দায়িত্ব। সেক্ষেত্রে এদের শুরু থেকেই সুশৃংখলভাবে রাখতে হবে এবং জাতিসঙ্ঘের সাহায্য নিতে হবে। তাহলেই…

View original post 311 more words

Leave a Reply

Fill in your details below or click an icon to log in:

WordPress.com Logo

You are commenting using your WordPress.com account. Log Out / Change )

Twitter picture

You are commenting using your Twitter account. Log Out / Change )

Facebook photo

You are commenting using your Facebook account. Log Out / Change )

Google+ photo

You are commenting using your Google+ account. Log Out / Change )

Connecting to %s